মানিকগঞ্জে স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর যাবজ্জীবন

কড়চা রিপোর্ট : মানিকগঞ্জের সিংগাইরে অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামী উজ্জ্বল মিয়াকে (৩১) যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা অর্থদন্ড এবং অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদন্ড প্রদান করেছেন জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক। বৃহস্পতিবার (১৮ মার্চ) দুপুরে মানিকগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মীর রুহুল আমিন আসামির উপস্থিতিতে এ রায় প্রদান করেন। দন্ডপ্রাপ্ত আসামি উজ্জ্বল মিয়া মানিকগঞ্জের সিংগাইর উপজেলার আঠালিয়া গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে।

রাস্ট্রপক্ষের আইনজীবী সরকারি কৌশলি আব্দুস সালাম জানান, প্রেমের সম্পর্কে ২০১৩ সালের শেষের দিকে এক্ই উপজেলার আঠালিয়া গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে উজ্জ্বল মিয়ার সাথে রোকেয়া আক্তারের বিয়ে হয়। বিয়ের ৪ মাসের মধ্যে সে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। এরপর থেকেই রোকেয়ার উপর শারীরিক ও মানুষিকভাবে নির্যাতন করতেন স্বামীসহ তার শ্বশুর বাড়ির লোকজন। ২০১৪ সালের ২৫ আগস্ট রাত ৩ টার দিকে রোকেয়ার বাবার বাড়িতে খবর দেওয়া সে ( রোকেয়া) মারা গেছে। নিহতের বাবার বাড়ির লোকজন গিয়ে দেখে রোকেয়ার মরদেহ দুয়ারে রাখা হয়েছে এবং শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতে চিহ্ন রয়েছে। পরে এঘটনায় ২৬ আগস্ট নিহতের ভাই মোঃ শুকুর আলী বাদি হয়ে স্বামী উজ্জল মিয়া, শ্বশুর জালাল উদ্দিন, শ্বাশুড়ী হাজেরাকে আসামি করে সিংগাইর থানায় মামলা দায়ে করেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা তৎকালিন সিংগাইর থানার উপপুলিশ পরিদর্শক (এসআই) মোক্তার হোসেন তালুকদার ২০১৫ সালের ২৮ মে উজ্জ্বলকে আসামি করে মানিকগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। ২০১৫ সালের ৭ সেপ্টেম্বর জেলা ও দায়রা জজ আদালতে মামলাটি গৃহিত হয়। মামলায় ১১ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আসামির উপস্থিতে আদালত উপরোক্ত রায় ঘোষণা করেন।

কড়চা/ বি সি

Facebook Comments
ভাগ