পাটুরিয়ায় ৪ লঞ্চ মালিককে ১৫ হাজার টাকা জরিমানা

কড়চা রিপোর্ট : মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র না থকায় ৪ টি লঞ্চ মালিককে ১৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন নৌ-পরিবহন অধিদফতরের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শারমিন আক্তার।

শনিবার (১৭ জুলাই) দুপুরে পাটুরিয়া লঞ্চঘাট পরিদর্শনকালে তিনি এ জরিমানা করেন। এসময় পানসি নামে লঞ্চ মালিককে তিন হাজার, ব্ল্যাকবার্ড নামের লঞ্চ মালিককে পাঁচ হাজার, অনিকা নামের লঞ্চ মালিকে দুই হাজার ও ফাতেহা নুর নামের লঞ্চ মালিককে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

পাটুরিয়া লঞ্চ মালিক সমিতির সুপারভাইজার পান্না লাল নন্দি জানান, করোনা বিস্তার রোধে কঠোর লকডাউন শিথিল করায় ২২ দিন বন্ধ থাকার পরে মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে চালু হয় যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল। এ কারণে লঞ্চের অনেক মালিকই কাগজপত্র নবায়ন করতে পারে নাই। ঈদে দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল জেলার যাত্রীদের নির্বিঘ্নে পারাপারে করতে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে ২৩ টি যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল করছে।

ভ্রাম্যমাণ আদালতের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শারমিন আক্তার জানান, ঈদকে সামনে রেখে পাটুরিয়া লঞ্চঘাট হয়ে গ্রামের বাড়ি যাচ্ছেন দক্ষিণ অঞ্চলের মানুষ। এসব যাত্রীদের নির্বিঘ্নে নৌপথ পারাপারের ক্ষেত্রে পাটুরিয়া লঞ্চঘাটের সার্বিক পরিস্থিতি পরিদর্শন করা হয়। এসময় প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখাতে না পারায় চারটি লঞ্চ মালিককে জরিমানা করা হয়। সেই সঙ্গে সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী লঞ্চ সার্ভিস চালু রাখার বিষয়ে মালিকদের নির্দেশনা দেওয়া হয় এবং করোনা সংক্রমণ বিস্তার রোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ও অর্ধেক যাত্রী নিয়ে লঞ্চ চলাচল করতে বলা হয়েছে।

কড়চা/ এ এইচ

Facebook Comments
ভাগ